May 29, 2020, 7:57 am

সংসদীয় কমিটির খরচ ১০ কোটি, উপস্থিতি অর্ধেক

দশম জাতীয় সংসদের পাঁচ বছরে প্রায় ১০ কোটি টাকা ব্যয় করেও কোনো সংসদীয় কমিটির বৈঠকে এমপিদের শতভাগ উপস্থিতি নিশ্চিত করা যায়নি। গড়ে প্রতিটি বৈঠকে সদস্যদের অর্ধেকের বেশি উপস্থিতির প্রমাণ পাওয়া গেছে। এমনকী মাসে যতগুলো বৈঠক করার কথা ছিল তাও করতে পারেনি কমিটিগুলো।

নেই সুপারিশ বাস্তবায়নের কোনো ‘সুনির্দিষ্ট’ হিসাব। সংসদে প্রতিবেদন উপস্থাপনের ক্ষেত্রেও তাদের অবহেলা লক্ষ্য করা গেছে। এসব কারণে সরকারের কাজে জবাবদিহিতা নিশ্চিতের জন্য গঠিত সংসদীয় কমিটিগুলোর অবস্থা ছিল নড়বড়ে।

জানা যায়, ১১টি সংসদীয় কমিটি এবং ৩৯টি মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটিসহ মোট ৫০টি কমিটি রয়েছে সংসদে। গত পাঁচ বছরে ২৫ হাজার ৪৯৪টি সিদ্ধান্ত বা সুপারিশ করেছে কমিটিগুলো। কিন্তু বাস্তবায়নের কোনো পরিসংখ্যান নেই কারও কাছে। তবে সরকারের মেয়াদের শেষ দিকে কাগজে-কলমে মন্ত্রণালয় দেখিয়েছে যে, প্রায় সব সুপারিশই বাস্তবায়ন হয়েছে। কিন্তু জাগো নিউজের অনুসন্ধান দেখা গেছে, এসব সুপারিশের অর্ধেকও বাস্তবায়ন হয়নি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে সংসদবিষয়ক গবেষক ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক নিজাম উদ্দিন জাগো নিউজকে বলেন, ‘বর্তমান এমপিদের অধিকাংশই ব্যবসায়ী। এছাড়া ১৫৩ জন এমপি বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত। তাদের অধিকাংশেরই প্রধান লক্ষ্য টাকা আয়। তাই সংসদের প্রতি তাদের নজর কম। বেশির ভাগ এমপিই নিজ নিজ ফাইল নিয়ে সচিবালয়ে দৌড়াদৌড়ি করেছেন।

কমিটির ব্যয় প্রায় ১০ কোটি টাকা

জাতীয় সংসদের সহকারী সচিব ফারহানা বেগম স্বাক্ষরিত এক প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, দশম জাতীয় সংসদ গঠনের পর ২০০৯ সালের জানুয়ারি থেকে ২০১৮ সালের জুন পর্যন্ত সংসদীয় কমিটিগুলো তিন হাজার ২২৫টি বৈঠক করেছে।

সংসদের লাইব্রেরিতে রাখা ২০১৭ ও ২০১৮ সালের সাপ্তাহিক বুলেটিন থেকে সংসদীয় কমিটিগুলোর বৈঠকের হাজিরা পর্যালোচনা করে দেখা যায়, বেশির ভাগ কমিটির সদস্য সংখ্যা ১০ জন হলেও গড়ে ছয়জন করে বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2018 banglatimes71.Com
Design & Developed BY Banglatimes71.com